Breaking News

করোনা রোগীদের সুবিধার্থে অক্সিজেন প্লান্ট তৈরি করবে রাম মন্দির নির্মাণ ট্রাস্ট!

নিজস্ব প্রতিবেদন:বর্তমানে দেশের করোনা পরিস্থিতিতে যেভাবে দিনের-পর-দিন সংক্র-মণ বেড়ে চলেছে তাতে সাধারণ মানুষের কাছে নিজেকে সুরক্ষা করা ছাড়া আর কোনো উপায় নেই।কারণ বিগত বেশ কিছুদিন ধরেই ভাইরাসের বিদেশী স্ট্রেন গুলির উপর ভ্যাকসিন কোন ভাবেই কার্যকর হচ্ছে না বললেই চলে।উপরন্তু এই বিদেশী প্রজাতির ভাইরাসগুলো মিউটেশনের ফলে এতটাই শক্তি-শা-লী হয়ে গিয়েছে যে চিকিৎসকদের কাছে তা নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভবপর হচ্ছে না।

বিশেষত দেশের বেশ কয়েকটি জায়গায় এবং বড় বড় শহরে অক্সিজেনের ঘাটতি দেখা দেওয়ার ফলে আরো সমস্যার মুখোমুখি হচ্ছে হাসপাতালগুলি। সম্প্রতি পূর্ববর্তী বেশ কয়েকদিন ধরেই দেশের অনেক জায়গা থেকে অক্সিজেনের অভাবে মানুষের মৃত্যুর খবর সামনে এসেছে।ইতিমধ্যেই অক্সিজেনের সমস্যা মেটানোর জন্য সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়েছেন রতন টাটা এবং রিলায়েন্স গ্রুপের কর্ণধার মুকেশ আম্বানি।

এছাড়াও বেশ কয়েকজন বিশিষ্ট ব্যক্তিরাও এই কাজে সরকারকে সাহায্য করার জন্য প্রচেষ্টা চালাচ্ছেন। এই সঙ্ক-টজ-নক পরিস্থিতিতে ভারতবাসীর পাশে দাঁড়ানোর জন্য এইবার এগিয়ে এলো রাম মন্দির তহবিল। প্রসঙ্গত গত বছর রাম মন্দির নির্মাণের সিদ্ধান্ত ঘোষণার পর থেকেই জোরকদমে তার প্রস্তুতি শুরু হয়ে গিয়েছিল। কোটি কোটি টাকার অনুদান জমা করার পাশাপাশি ভূমি পূজন থেকে শুরু করে সবকিছুই সম্পূর্ণ।কিন্তু দেশের এই শোচনীয় অবস্থা দেখে এইবার অনুদানের টাকায় অক্সিজেন প্লান্ট গড়ার সিদ্ধান্ত নিল রাম মন্দির তহবিল।

সম্প্রতি এদিন শ্রী রাম জন্মভূমি তীর্থক্ষেত্র ট্রাস্টের তরফ থেকে অক্সিজেন প্লান্ট বসানোর কথা ঘোষণা করা হয়েছে। ওয়াকিবহাল মাধ্যমের খবর অনুযায়ী জানা গিয়েছে, গতবছর জানুয়ারি এবং ফেব্রুয়ারি মাসে সম্পূর্ণ দেশজুড়ে রাম মন্দির নির্মাণের জন্য যে অর্থ সংগ্রহ করা হয়েছিল তার মধ্যে থেকেই৫৫ লক্ষ টাকা ব্যয় করে তৈরি হবে অক্সিজেন প্ল্যান্ট।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, গত জানুয়ারি মাসের ১৫ তারিখ থেকে বিশ্ব হিন্দু পরিষদ এবং অন্যান্য হিন্দুত্ববাদী সংগঠনগুলি রাম মন্দির নির্মাণের জন্য বহুল পরিমাণে অর্থ সংগ্রহ করেছিল। এই কাজে সহায়তা করেছিলেন বিশ্ব হিন্দু পরিষদের প্রায় দেড় লক্ষেরও বেশি কর্মী। সূত্রের খবর থেকে জানা গিয়েছে যে প্রায় ২৫০০ কোটি টাকার অনুদান জমা পড়েছিল এই তহবিলে। উল্লেখ্য ২০২০ সালের ৫ ফেব্রুয়ারি সংসদে ঘোষণা করা হয়েছিল যে, নরেন্দ্র মোদী সরকার মন্দিরটি নির্মাণের পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে।

এদিন ট্রাস্টের প্রধান অনিল মিশ্র জানিয়েছেন,”করোনার ধাক্কায় গোটা দেশ অতিষ্ঠ। এই পরিস্থিতিতে ট্রাস্টের তরফে ৫৫ লক্ষ টাকা খরচ করে দু’টি অক্সিজেন প্লান্ট গড়া হবে। অযোধ্যার দশরথ মেডিক্যাল কলেজে ওই প্লান্টগুলি লাগানো হবে”। রাম মন্দির নির্মাণ ট্রাস্টের এই সিদ্ধান্তের ফলে দেশের জনগণের সুরাহা হবে বলে মনে করছেন অনেকে। বিশেষত এই মুহূর্তে করোনা ভাইরাসের আক্রমণের ফলে দেশের মধ্যে সবথেকে ক্ষতিগ্রস্ত রাজ্যগুলির পরিস্থিতি কিছুটা হলেও স্বাভাবিক হতে পারে এর ফলে।

মঙ্গলবারই অক্সিজেনের অভাবের প্রসঙ্গে কেন্দ্রকে তীব্র সমালোচনা করেছিল দিল্লি হাই কোর্ট। আদালত প্রশ্ন তুলেছিল, এই সংকটের সময়ে কোথায় পাওয়া যায় অক্সিজেন? কেন হাসপাতালে এসে অক্সিজেনের জন্য অপেক্ষা করতে হচ্ছে রোগীদের? এই পরিস্থিতিতে কেন্দ্র দাবি করেছে, নয়টি সংস্থা ছাড়া বাকি সবাইকে শিল্পের জন্য ব্যবহৃত অক্সিজেন উৎপাদন বন্ধ করতে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।গতকাল দেশে নতুন করে ভাইরাস আক্রান্ত হয়েছেন প্রায় ৩ লক্ষ্য ৪৯ হাজার জনেরও বেশি মানুষ। এবং শনিবার দেশে মৃত্যু ঘটেছে ২ হাজার ৭৬০ জনের।

About kolkata buzz24x7

Check Also

‘আরআরআর’, ‘কেজিএফ’-এর মতো ‘অর্থহীন’ ছবি দেখবেন না, শ্রোতাদের অনুরোধ করলেন জুবিন

নিজস্ব প্রতিবেদন:বর্তমানে বলিউড ইন্ডাস্ট্রি বিভিন্ন চলচ্চিত্রে থেকেও বেশি পরিমাণে মানুষের মনে জায়গা করে নিয়েছে দক্ষিণের …

Leave a Reply

Your email address will not be published.